এরশাদ নাবিল খানের কবিতা

বেনামী কবিতা

হৃদয়ের ক্ষতে কতজনের নিশ্বাস ভারী হয়ে উঠছে হরদম,

অবিশ্বাসের চোখরাঙানিতে বিশ্বাস হয়ে পড়ছে নড়বড়ে,

ভালোবাসাগুলো অসহায় আত্মসমর্পণে মত্ত দিকে দিকে,

প্রতিশ্রুতিরা ক্রমাগত আঘাতে আঘাতে লড়ছে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা,

স্বপ্নেরা দু:স্বপ্নের হুংকারে মিয়ম্রান হয়ে ছাড়ে স্বপ্নচারীর আস্তানা,

আশাগুলো হতাসার ক্রুদ্ধদৃষ্টি উপেক্ষা করতে পারছেনা যেনো কিছুতেই,

শান্তনার বাণীগুলোও কেন শুনাচ্ছে নিষ্ঠুর সব রসিকতা, ক্রুর হাসির মতো,

নির্মম অত্যাচারে আর ক্রমাগত পিছুটানে আজ দিশেহারা জীবনের রাস্তায় ছুটে চলা অসংখ্য পথিক,

জীবনের এগলি ওগলিতে মৃত্যুর কাছে মাথা নত করে পড়ে আছে কত তাজা প্রাণ।

ব্যর্থতার হুঙ্কার আর চাবুকের আঘাতে যেনো কিছুতেই বুক ভরে নিশ্বাস নিতে পারেনা বিন্দুবিন্দু সফলতা,

অষ্টাদশী প্রেমিকা প্রলোভনে সব হারিয়ে পাড়ি জমায় উদ্দেশ্যহীনতায়,

টগবগে উদ্যমী যুবক প্রতিযোগিতার বাজারে যুদ্ধ করতে গিয়ে ক্লান্ত হয়ে ছিটকে পড়ে প্রতিদিন,

অসহায়ত্বের শিকলে নিজেকে জড়িয়ে স্থবির হয়ে বসে থাকাই যেনো আজ জীবন,

অশ্রুগুলোকে পরম সমাদরে গড়িয়ে পড়তে দেয়াই যেনো প্রশান্তি,

এ কোন পথে চলেছে মহাকালের কাফেলা,

কোন বিসাদের চাদরে আজ ঢাকা জীবনের উচ্ছলতা?

তবে কি সমাপ্তির ক্রন্দনে বাতাস ভারী হবে শিগগির,

মহাকালের কাফেলা কি থেমে যাবে তৃষ্ণার্ত বুকে?

তবে কি পূরণ হবেনা আর কোনদিন রাশিরাশি স্বপ্নের,

উল্লাসে কি আর ফেটে পড়বেনা তারুণ্যের দল?

তবে কি ক্ষনস্থায়ীত্বের জয়ের সুর্য উঠবে আকাশে?

পারকি, আনোয়ারা, চট্টগ্রাম থেকে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *