করোনা শনাক্তের হার বেড়ে ১০ দশমিক ৮৭ শতাংশ

:: নাগরিক ডট নিউজ ::

দেশে মহামারি করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় একজনের মৃত্যু হয়েছে। ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে শনাক্তের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০ দশমিক ৮৭ শতাংশ। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৯ হাজার ১৩২ জনে। এসময়ে সংক্রমিত হয়েছেন ৮৭৩ জন।

সোমবার (২০ জুন) স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনাবিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ৯২ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১৯ লাখ ৫ হাজার ৮৯ জন।

২৪ ঘণ্টায় ৮ হাজার ৪৬টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরীক্ষা করা হয় ৮ হাজার ২৮টি নমুনা। পরীক্ষার বিপরীতে শনাক্তের হার ১০ দশমিক ৮৭ শতাংশ। মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত মোট শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৭৫ শতাংশ।

বাংলাদেশে প্রথম করোনা সংক্রমণ শনাক্ত হয় ২০২০ সালের ৮ মার্চ। এর পর থেকে এখন পর্যন্ত দেশে করোনা সংক্রমণের চিত্রে কয়েক দফা ওঠানামা করতে দেখা গেছে। করোনা পরিস্থিতি প্রায় সাড়ে তিন মাস নিয়ন্ত্রণে থাকার পর গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিকে সংক্রমণ বাড়তে শুরু করে। করোনার নতুন ধরন অমিক্রনের প্রভাবে দ্রুত বাড়তে থাকে রোগী শনাক্ত ও শনাক্তের হার।

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারির মাঝামাঝি থেকে নিয়মিতভাবে রোগী শনাক্ত ও শনাক্তের হার কমেছে। দেশে সংক্রমণ কমে আসায় আবার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হয়। তুলে নেওয়া হয় করোনাকালীন বিধিনিষেধ। গত ২৫ মার্চ থেকে ১২ জুন পর্যন্ত দৈনিক শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১০০-এর নিচেই ছিল। এরপর এই কয়েক দিনে ২৪ ঘণ্টায় রোগী শনাক্তের সংখ্যা বাড়তে বাড়তে ৮০০ ছাড়িয়ে গেল।

সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় যে ৮৭৩ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে, তাঁদের মধ্যে ৮১০ জন ঢাকা বিভাগের। এর মধ্যে ৭৯৮ জনই মহানগরসহ ঢাকা জেলার। এর বাইরে বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছে চট্টগ্রামে ৩১ জন এবং কক্সবাজারে ১৪ জন। অন্যান্য জেলায় রোগী শনাক্তের সংখ্যা এখনো এক অঙ্কের ঘরে রয়েছে।

সংক্রমণের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত দেশে ১৯ লাখ ৫৭ হাজার ২০০ জনের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৯ লাখ ৫ হাজার ৮৯৯ জন। আর মৃত্যু হয়েছে ২৯ হাজার ১৩২ জনের।

Leave a Reply

Your email address will not be published.